আজ   ,
সংবাদ শিরোনাম :

প্রজন্মের সেতুবন্ধন” সিলেট-এর মেধাবী ও পিছিয়ে পড়া শিক্ষার্থীদের অনুদান প্রদান ও সংবর্ধনা অনুষ্ঠান সম্পন্ন

কমলকান্ত রায় তালুকদার,সুনামগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি,দৈনিক শিক্ষার কন্ঠস্বর।

প্রজন্মের সেতুবন্ধন সিলেট-এর উদ্যোগে মেধাবী ও পিছিয়ে পড়া শিক্ষার্থীদের অনুদান প্রদান, সংবর্ধনা ও অভিষেক অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেছেন, শিক্ষা ব্যতীত কোনধরনের উন্নয়ন কল্পনাও করা যায়। শিক্ষা বিষয়ে সরকার গৃহীত পদক্ষেপের পাশাপাশি সমাজের সকলকে সকলকে সোচ্চার হতে হবে।গরীব ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের কল্যাণে প্রজন্মের সেতুবন্ধন সিলেট-এর মতো সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে।
গতকাল ১৫ মার্চ শুক্রবার জেলা পরিষদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ সাবেক সিলেট সিটি মেয়র জনাব বদর উদ্দিন কামরান৷ বিশেষ অতিথি বক্তব্য রাখেন মানবাধিকার কমিশন সিলেট বিভাগের গভর্ণর রোটারিয়ান ড. আর কে ধর, এডভোকেট প্রদীপ ভট্টাচার্য, সাবেক ব্যাংকার শান্তি নন্দী। মূখ্য আলোচক ছিলেন সংগঠনের প্রধান উপদেষ্টা কবি পুলিন রায়। সংগঠনের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা যাদব বিশ্বাসের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক ক্ষিতীশ সরকারের সঞ্চালনে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন মৌলভীবাজার কাশ্যপ কল্যাণ পরিষদের সভাপতি অবিনাশ বিশ্বাস, হবিগঞ্জের জিতেন্দ্র সরকার, বীর মুক্তিযোদ্ধা দুর্যোধন বিশ্বাস, এডভোকেট পুলিন বিহারী বিশ্বাস, অধ্যাপক স্বপন কুমার বিশ্বাস, অধ্যাপক বীনা সরকার, শি ক্ষক চরিত্রবান সমাজপতি, প্রকৌশলী নিহার রঞ্জন রায়, কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক কর্মকর্তা, কবি ধ্রুব গৌতম, কবি চন্দ্রশেখর দেব, রাখাল সরকার, ডাঃ বিমল কান্ত সরকার, ডাঃ নকুল কুমার নিলয় প্রমুখ।
অনুষ্ঠানে ৩৪ জন মেধাবী ও পিছিয়ে পড়া ৩৪ জন শিক্ষার্থীকে অনু্দান, স্ক্র্যাস্ট ও সনদ প্রদানসহ সংবর্ধনা দেয়া হয়।
এ উপলক্ষে প্রজন্মের সেতুবন্ধন নামে একটি সংকলন প্রকাশিত হয়।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।


ঘোষনাঃ